ঢাকা : শুক্রবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৮

সংবাদ শিরোনাম :

  • দুই দেশের সম্পর্ক আরও এগিয়ে যাক : মমতা           কারও মুখের দিকে তাকিয়ে মনোনয়ন দেয়া হবে না : প্রধানমন্ত্রী          ২২তম অধিবেশন চলবে ২০ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত          জীবনমান উন্নয়নের শিক্ষাগ্রহণ করতে হবে : প্রধানমন্ত্রী          দেশের উন্নয়নে বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে          বঙ্গবন্ধুর নাম কেউ মুছতে পারবে না : জয়
printer
প্রকাশ : ২৮ জুন, ২০১৮ ১৯:০২:০৫
আ.লীগ ক্ষমতায় টিকে থাকতে পারবেনা : ফখরুল
টাইমওয়াচ রিপোর্ট


 


বিদ্যমান অবস্থার পরিবর্তনে জাতীয় ঐক্য সৃষ্টির প্রক্রিয়া চলছে জানিয়ে বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, ওই প্রক্রিয়া সফল হলে আওয়ামী লীগ তিনদিনও ক্ষমতায় টিকে থাকতে পারবে না।
২৮ জুন বৃহস্পতিবার দুপুরে জাতীয় প্রেসক্লাবে অনুষ্ঠিত এক সমাবেশে তিনি এ মন্তব্য করেন।
বিএনপির চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া এবং যুবদলের কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক সুলতান সালাউদ্দিন টুকুর মুক্তির দাবিতে এ সমাবেশের আয়োজন করা হয়।
ফখরুল বলেন, জাতীয় ঐক্য সৃষ্টির লক্ষে কাজ শুরু করেছি, সকল রাজনৈতিক দলের প্রতি আহ্বান জানিয়েছি। ম্যাডাম জেলে যাওয়ার আগে তিনিও আহ্বান করে গিয়েছেন, সমস্ত রাজনৈতিক দলগুলোর কাছে তিনি জাতীয় ঐক্যের আহ্বান জানিয়েছেন। এখন সবাই সচেতন হয়ে উঠেছেন যে, আজকে দেশের যে অবস্থা তা চলতে দেয়া যায় না।
তিনি বলেন, আজকে এই অবস্থার পরিবর্তন করতে হলে সকলের একটা ঐক্য দরকার এবং সেই জাতীয় ঐক্য সৃষ্টির কাজ চলছে। আমরা আশা করি এটাতে সফল হওয়া যাবে। আর এটাতে যদি সফল হওয়া যায় তাহলে ইনশাআল্লাহ আওয়ামী লীগ ৩ দিনও ক্ষমতায় থাকতে পারবে না। জাতীয় ঐক্য সৃষ্টির কারণ আন্দোলন করার জন্যই। এটাই আন্দোলনের পথে নিয়ে যাবে।
বিএনপি মহাসচিব বলেন, ৭৮ হাজার মামলা আমাদের নেতা-কর্মীদের বিরুদ্ধে দেয়া হয়েছে। আজকে বিরোধী দলের নেতা-কর্মীরা শান্তিতে একটু বাসায় থাকতে পারি না। আজকে তারা শরণার্থী হয়ে পড়েছে, অন্য এলাকায় গিয়ে থাকে।
তিনি বলেন, জাতিসংঘের মহাসচিব আসছেন রোহিঙ্গা শরণার্থীদের দেখতে। গোটা বাংলাদেশের মানুষ এখন শরণার্থী, শুধু রোহিঙ্গারা নয়। জাতিসংঘের মহাসচিবসহ সকলকে এই বাংলাদেশকেই দেখতে আসা উচিৎ।
দলের নেতাকর্মীদের ঐক্যবদ্ধভাবে আন্দোলনের প্রস্তুতি নেয়ার আহ্বান জানিয়ে বিএনপির মহাসচিব বলেন,আপনারা অন্তত ঘরের মধ্যে প্রোগ্রাম করা বন্ধ করেন। যদি ১০ জনও হয় রাজপথে নামুন। নিজেরা সংগঠিত হোন।
তিনি বলেন, খালেদা জিয়াকে কারামুক্ত করতে হলে আন্দোলনের বিকল্প নেই। ২০১৪ সালের আন্দোলনের আগে আমরা যে আন্দোলন করেছি, সমস্ত রাস্তাঘাট সেদিন বন্ধ হয়ে গিয়েছিল। সে আন্দোলন এখন আর হচ্ছে না। ২০১৪ সালের পর আমরা পারিনি, কেন পারিনি তারও নানা কারণ আছে, আমি সেদিকে না যায়।
ফখরুল বলেন, আমরা রাজপথে জীবন দিতে পারি, কিন্তু যুবকদের তো আসতে হবে আমাদের সাথে? যুবদল, ছাত্রদলকে রাজপথে নেমে আসতে হবে, জনগণের কাছে যেতে হবে।
যুবদলের সিনিয়র সহ-সভাপতি মোরতাজুল করিম বাদরুর সভাপতিত্বে সমাবেশে অন্যদের মধ্যে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, ভাইস চেয়ারম্যান বরকত উল্লাহ বুলু প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।

printer
সর্বশেষ সংবাদ
রাজনীতি পাতার আরো খবর

Developed by orangebd